দীর্ঘ দুই বছর চার মাসের মধুর ভালোবাসার সম্পর্কের ইতি টেনেছেন বিখ্যাত পপ গায়ক ও গীতিকার জায়ান মালিক এবং মডেল জিজি হাদিদ। তারা দুইজনই তাদের নিজস্ব টুইটার হ্যান্ডেলে বিষয়টি পোস্ট করে নিশ্চিত করেছেন।

মঙ্গলবার রাতে নিজের টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে দেওয়া এক পোস্টে জায়ান তাদের সম্পর্ক বিচ্ছেদের উল্লেখ করেন। অথচ মাত্র এক মাস আগেই জায়ান মালিক নিজের বুকের বামপাশে জিজি হাদিদের চোখের একটি ট্যাটু আঁকিয়েছিলেন। টুইট বার্তায় জায়ান লিখেন, ‘জিজি এবং আমার সম্পর্কটি খুব চমৎকার, অর্থবহ, ভালোবাসাপূর্ণ এবং আনন্দময় ছিল। একজন নারী ও বন্ধু হিসেবে জিজির প্রতি আমার অনেক বেশি শ্রদ্ধা ও ভালোবাসা আছে। তার মনটা খুব ভালো।’

এছাড়া ভক্ত ও অনুরাগীদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে তিনি লিখেন, ‘সকল ভক্তদের প্রতি আমি কৃতজ্ঞ। এমন কঠিন সিদ্ধান্ত ও কঠিন সময়ে আমাদের গোপনীয়তার প্রতি শ্রদ্ধাশীল হবার জন্য। সবার জন্য ভালোবাসা।’ জায়ান মালিকের টুইটপোস্টের ঠিক বারো মিনিট পরেই নিজের টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে সম্পর্ক ভেঙে যাওয়ার ব্যাপারে মুখ খোলেন জিজি হাদিদও। তিনি বলেন, ‘আমি অন্য কিছু চাই না, শুধু তার ভালো চাই এবং আমরা ভালো বন্ধু হয়ে একে অপরকে সবসময় সমর্থন করে যাব।’

ধারণা করা হয়, ২০১৬ সালের শুরুর দিকে ‘পিলোটক’ নামক মিউজিক ভিডিওতে একসঙ্গে কাজ করার সময় থেকেই জায়ান ও জিজির মধ্যে ভালোবাসার সম্পর্কের শুরু। অবশ্য ওই বছর মেট গালার রেড কার্পেটে পা রাখার আগে দুজনের কেউ এ বিষয়ে মুখ খোলেননি।