69 / 100

বাংলাদেশের কিশোর-তরুণদের মাঝে জাপানে তৈরি এনিমে (Anime) বা এক ধরনের কার্টুন বেশ সাড়া ফেলেছে। পৃথিবীর প্রতি ৭ জন মানুষের মধ্যে একজন এ্যানিমে ভক্ত। এইটাও বাড়াবাড়ি শোনালেও সত্যি।

লকডাউনে কি দেখা যায় বলে আমাকে এক বন্ধু ম্যাসেজ দিলো কিছুক্ষণ আগে। সে 13 Reasons Why আর Barry, এই দুই সিরিজ দেখে শেষ করেছে। এখন কি দেখা যায় জানতে চাইলে আমি বললাম, Breaking Bad দেখতে। সে বললো এইটা দেখা শেষ আরও আগে। GOT, Better Call Saul, Westworld, Person Of Interest, Sherlock, এগুলো দেখেছে, এখন নতুন কিছু খুজছে। তখন আমি তাকে বললাম Attack on Titan দেখতে। সে আচ্ছা বলে চলে গেলো।

দুই মিনিট পর আমাকে ফিরতি ম্যাসেজ। সেখানে লেখা, কার্টুন ফার্টুন না, টিভি সিরিজই দেখবে সে। আমি তখন তাকে বললাম Anime আর আমরা যেই Cartoon জানি, তার মধ্যে বিস্তর ফারাক। তাকে আমি অনুরোধ করলাম, তার ভাষ্যমতে, এইসব দেখার মুড তার নাই।

ANOHANA PROJECT
©︎ANOHANA PROJECT

জিনিসটা আমাকে ভাবালো। আমরা টিভি সিরিজ, সিনেমা কেন দেখি? কি এমন আছে যা আমাদের সিনেমা বা টিভি সিরিজ দেখাতে আগ্রহী করে তুলে? সিনেমাটোগ্রাফি? অভিনয়? গল্প?

অবাক করা ব্যাপার হচ্ছে, শখানেক Anime আছে যার মধ্যে এই তিনটা জিনিসই আছে। কিছু কিছু Anime আছে যা দেখলে মনে হয় স্বপ্ন দেখছি, এতো সুন্দর গ্রাফিক্স। গল্পও চমৎকার। কেউ যদি আমাকে বলে Stranger Things আর Attack on Titan এর মধ্যে একটা বেঁছে নিতে, তাহলে আমি Attack on Titan বেঁছে নিবো দ্বিতীয়বার না ভেবে।তাহলে আমরা কেন দেখছি না এইসব?

বহু লোক পাবেন, জনপ্রিয়, ট্রেন্ডিং এ থাকা সিনেমা টিভি সিরিজ দেখা শেষ করে হাপিত্যেশ করে নতুন কিছু খুজছে, কিন্তু তাদের খোজাখুজির তালিকাতে Anime নেই। এইটা আমার কাছে অদ্ভুত লাগে। কেন অদ্ভুত লাগে সেইটা বলি।

আমেরিকার যেমন হলিউড, ইন্ডিয়ার যেমন বলিউড, জাপানের তেমনই Anime ইন্ডাস্ট্রি। শুনতে অনেক বেশি বাড়াবাড়ি বলার মত মনে হতে পারে অনেকের, কিন্তু এইটাই সত্যি। Anime একটা মাল্টিবিলিওন ডলার ইন্ডাস্ট্রি। কোটি কোটি কপি মাংগা ( জাপানিজ কমিক বুক ভার্সন ) বিক্রি হচ্ছে রোজ, হাজারখানেক মাংগা Anime তে রুপান্তরিত হচ্ছে প্রতিবছর। এর জনপ্রিয়তা? পৃথিবীর প্রতি ৭ জন মানুষের মধ্যে একজন Anime ভক্ত। এইটাও বাড়াবাড়ি শোনালেও সত্যি।

Bakemonogatari Monogarari Series
Bakemonogatari (Monogarari Series)

তাহলে আমাদের দেশে এর জনপ্রিয়তা নেই কেন? কারন বেশ কয়েকটি, তার মধ্যে একটা উপরে উল্লেখ করা। Anime কে কার্টুনের সাথে তুলনা দেয়া। আমরা যেই কার্টুন দেখে বড় হয়েছি বা এখন দেখছি, সেগুলো প্রায় সবগুলোই শিশুতোষ। আমাদের ও আমাদের পরবর্তি প্রজন্ম, যারা কার্টুন দেখে বড় হয়েছে বা হচ্ছে, তাদের পছন্দের তালিকা করলে দেখা যাবে Doraemon, Pokemon, Dragon Ball Z ইত্যাদি কার্টুনের নাম, যা আদতে Anime হিসেবে পরিচিত। আমাদের আগের প্রজন্ম ও আমরা একসময় বিটিভি তে Samurai X নামের একটা কার্টুন দেখতাম, ওইটাও Anime ছিল। সমস্যা হচ্ছে, একগাদা সত্যিকারের কার্টুনের সাথে এগুলো দেখে দেখে আমরা এগুলোকে গুলিয়ে ফেলেছি। কার্টুন মানেই বাচ্চাদের জিনিস ভেবে Anime দেখছি না।

Anime চিন্তা করলে প্রায় সবার জন্য চিন্তা করে বানানো জিনিস দিয়ে ভরপুর। আপনি বাস্কেটবল ভালোবাসেন? আপনার জন্য আছে Kuroko No Basket। আপনি বক্সিং ভালোবাসেন? Hajime No Ippo দেখতে পারেন। আচ্ছা, খেলাধুলা না, আপনি রান্নাবান্না পছন্দ করেন? এর উপরেও Anime পাবেন। একশন, রোমান্স, কমেডি, থ্রিলার, সাই-ফাই, সব জনরায় এদের হাত আছে। সো বাচ্চাদের জিনিস ভাবাটা একদমই না জানার মত একটা বিষয়।তারপরেও দেখবেন কি দেখবেন না ভাবছেন?

আচ্ছা একটা ছোট তথ্য দেই।Game of Thrones এর নাম শুনেছেন? বোকার মত প্রশ্ন করলাম, অবশ্যই শুনেছেন। এই টিভি সিরিজের ফ্যান আমাদের দেশে অনেক আছে।IMDb এর একটা তালিকা আছে, সেরা টিভি সিরিজের এপিসোড নিয়ে। সেখানে সেরা ৫০ টি এপিসোডের তালিকায় Game of Thrones আর Attack on Titan এর সমানসংখ্যক ৫ টি করে এপিসোড আছে। আর সেরা তিনে? সবার উপরে আছে Breaking Bad এর এপিসোড Ozymandias, আর তার পরের দুটো এপিসোডের স্থান Attack on Titan এর দখলে।

Top 10 Anime of 2019

হ্যা, Anime আর টিভি সিরিজ এক না, এদের মধ্যে তুলনা হয় না। তথ্যটা কোনও বার্তা বহন করে না। তবে একটা কথা বলা যায়, বাচ্চাদের জিনিস খেতাব পাওয়া এই Anime বহু মানুষের হাসি কান্নার কারন। ঠিক যেমন আপনার প্রিয় সিনেমা বা টিভি সিরিজগুলো।Anime আমাদের এদিকে ওভাবে ছড়ায়নি, তার পিছনে আরেক কারন, অস্কার। এইটা কিভাবে বড় কারন? আসেন এবার কিছু রাগের কথা বলি।এনিমেটেড ক্যাটাগরিতে এখন পর্যন্ত মাত্র একটা Anime অস্কার জিতেছে, নাম হচ্ছে Spirited Away। এরপর আর কোনও Anime অস্কার জিতেনি। এই ক্যাটাগরিতে বেশ কয়েকবার বেশকিছু Anime film নমিনেশন পেলেও, তা আর জয়ের মুখ দেখেনি।অস্কার অনেকসময় এনিমেটেড ক্যাটাগরিতে গোলমাল পাকায়, সেইটা যারা অস্কার সম্পর্কে খবর রাখেন তারা জানেন। কিন্তু ২০১৮ সালের অস্কার সেই গোলমাল এমনভাবে পাকিয়েছিলো, সেই খবর বলি।

২০১৮ সালে এনিমেশন চলচ্চিত্রের সবচেয়ে আলোচিত চলচ্চিত্রগুলোর মধ্যে একটি ছিলো Coco, আরেকটি ছিলো Loving Vincent, এবং দুইটাই অস্কার নমিনেশন পায়। সেইবছর আরেকটি এনিমেটেড ফিল্ম সারা বিশ্বে আলোড়ন তুলেছিলো। ছবিটির নাম ছিলো Your Name বা জাপানিজ ভাষায় এর নাম Kimi No Na Wa, যেটি অনেক রেকর্ড ভেঙ্গে দিয়েছিলো সেই বছর।ওই বছর এই সিনেমাটি এনিমেশন ক্যাটাগরিতে নমিনেশন পায় নি। নমিনেশন পেয়েছিলো The Boss Baby আর Ferdinand, দুটি খুবই এভারেজ এনিমেশন ফিল্ম।

Your Name কে টপকে কিভাবে এই দুটি চলচ্চিত্র নমিনেশন পেলো, তা নিয়ে বেশ হইচই হয়েছিলো সেই বছর। তারপর কিছু ক্রিটিক যেই বোমা ফাটালেন তা হচ্ছে, একই বছর A Silent Voice মুক্তি পেয়েছিলো, যা অনেকের ভাষ্যমতে Your Name এর চাইতে ভালো Anime চলচ্চিত্র। এই চলচ্চিত্রটিও নমিনেশন পর্যন্ত পায় নি।Anime শুধু আমাদের দেশ না, অনেক দেশেই প্রাপ্তবয়স্কদের জিনিস হিসেবে গণ্য করা হয় না, আর অস্কার তারই একটা উদাহরণ। চলচ্চিত্র ভালোবাসেন, এমন লোকেরা অস্কারের মত জিনিসের খবর রাখেন ও চেষ্টা করেন অস্কার জেতা চলচ্চিত্রগুলো দেখার। এই চলচ্চিত্রবোদ্ধাদের কাছে তাই Anime সেভাবে পৌছায়নি।Your Name এর মত ইউনিক আর চমৎকার রোমান্টিক গল্প আমি খুবই কম দেখেছি। A Silent Voice এর টপিকটিও ছিলো খুবই জটিল ও সিরিয়াস। এদের টপকে যখন The Boss Baby নমিনেশন পায়, তখন অনেকের এই ভাবনা আসতেই পারে যে The Boss Baby উক্ত দুই চলচ্চিত্রের চেয়ে ভালো চলচ্চিত্র, বাস্তবে যা একদমই উল্টো।Anime একটা লুকিয়ে থাকা রত্ন আমাদের জন্য। প্রচুর অপশন রয়েছে, সব জনরাতেই এদের হাত আছে। আপনি যা ভালোবাসের তার উপরেই Anime এর চলচ্চিত্র বা সিরিজ আছে। দেশি বিদেশি চলচ্চিত্র, টিভি সিরিজ যারা দেখছেন, এই জায়গাতে একটা ঢু মেরে আসতে পারেন। It deserves a chance.